ঢাকা, ||

কেন সুজাতা সিংহকে নরেন্দ্র মোদি বরখাস্ত করলেন?


ফিচার

প্রকাশিত: ৬:০৩ অপরাহ্ন, জানুয়ারী ২৯, ২০১৫

sujatha-singhমেহেদী হাসান: যুক্তরাস্ট্রের প্রেসিডেন্ট ভারত থেকে সফর শেষে চলে যাবার মাত্র একদিনের মাথায় এমন কি হল যে নরেন্দ্র মোদি সরকার সুজাতা সিংহকে বরখাস্ত করলেন ? তিনি এমন সময় বরখাস্ত হলেন যখন কিনা তার চাকুরী মাত্র ৮ মাস বাঁকি ছিল !
আর একারনেই সবার মাঝে একটিই প্রশ্ন জাগছে , কেন বিষয়টি এমন হল ।
আর সুজাতা সিংহ কি এমন কাজ করলেন যাতে করে তাকে ছুটিতে যেতে হল ?
অস্পষ্ট সূত্রে জানাগেছে নরেন্দ্র মোদি বেশ কিছুদিন থেকেই তার উপর খুশি ছিলেন না । তার উপর খুশি না থাকার বেশ কিছু কারণ ছিল , তাকে আরও আগেই হঠানোর কথা উঠেছিল দলীয় বৈঠকে কিন্তু যেতে বর্তমান পররাস্ট্র মন্ত্রী সুষমা স্বরাজ তার পক্ষে ছিলেন তাই তিনি এতদিন স্বপদেই থাকতে পেরেছেন ।
ওবামা সফর শেষেই বা এমন কেন হল তার স্পষ্ট কিছু নমূনা পাওয়াগেছে ।
বর্তমানে নিয়োগ পাওয়া পররাস্ট্র সচিব এস জয় সঙ্কর নিযেই আমেরিকা ঘেঁষা মানুষ , এবং তিনি ওয়াশিংটনে দীর্ঘদিন ধরেই দূত হিসেবে চাকুরী করছিলেন । জানাগেছে তিনি অত্যন্ত কর্মদক্ষ মানুষ এবং তার চাকুরীর মেয়াদও মাত্র একদিন ছিল ! .. তার চাকুরীর মেয়াদ শেষে হতেই তাকে প্রমোশন দিয়ে এই পদে বসাতেই এমন তড়িঘড়ি করে নিয়োগ দেয়া হল আর সেজন্য সুজাতাকে সরে যেতে হল ।
সরকার মনে করছে জয় সংকর নিয়োগের পর পরই পররাস্ট্র মন্ত্রণালয় অবশ্যই কর্ম চঞ্চল হয়ে উঠবে , এতদিন যে কাজগুলো জমে পড়েছিল তারও অবসান হবে । এর আগে জয় সঙ্কর চীনের রাস্ট্রদূত ছিলেন । সর্বশেষ তিনি যুক্তরাস্ট্রে রাস্ট্রদূত হিসেবে চাকুরী করার সময় ওমাবার সাথে নরেন্দ্র মোদির বৈঠক ও নিগুঢ় সম্পর্ক স্থাপনে জয় সংকরের অবদান বেশ জোড়ালো । যে বিষয়টি উল্লেখযোগ্য তা হল এর আগে মনমোহন সিংহ প্রধানমন্ত্রী থাকাকালেই তিনি জয় সংকরকে নিয়োগ দিতে প্রস্তাব করেছিলেন, কিন্তু সুজাতা সিংহ ছিলেন কংগ্রেস নেত্রী সোনিয়া গান্ধীর পছন্দের তাই তাকে নিয়োগ দেয়া হয় । কংগ্রেস সরকারের সময়ে বেশ বড় বড় পদে চাকুরী করারও অভিজ্ঞতা আছে এস জয় সংকরের ।
যদিও কংগ্রসের পক্ষ থেকে তার নিয়োগের বিরুদ্ধে অভিযোগ নেই কিন্তু সুজাতাকে এভাবে চাকুরীচ্যুত করার জন্য বর্তমান সরকারকে বেশ সমালোচনা করা হয়েছে ।
তবে কংগ্রেসের কিছু নেতাদের পক্ষথেকে অভিযোগ করা হয়েছে যে এই নিয়োগ কি ওবামা কে খুশি করতেই কিনা ? নাকি তারই ইঙ্গিতে ?
**তবে সরকারী সূত্রে বলা হয়েছে ‘তাকে অপমান জনক ভাবে বরখাস্ত করা হয়নি বরং তার স্বইচ্ছাতেই ছুটিতে পাঠিয়ে দেয়া হয়েছে ।‘
তথ্যসূত্র : হিন্দি অনলাইন ‘আজতক’ ।

Top